একনজরে শ্রীপুর বুড়া মসজিদ

0
680

বিভাগের সম্পাদক : চট্টগ্রাম শহরের অদূরে কর্ণফুলী নদীর পূর্ব পাড়ে অবস্থিত মনোরম প্রাকৃতিক রূপ বৈচিত্রে ভরপুর উপজেলা বোয়ালখালী। শিক্ষা-দীক্ষা, সাহিত্য সংস্কৃতি ও আন্দোলনের হাজার বছরের ঐতিহ্য রয়েছে এই উপজেলার । এই বোয়ালখালী উপজেলার আমুচিয়া গ্রামে অবস্থিত বিখ্যাত মসজিদের নাম শ্রীপুর বুড়া মসজিদ। এর পূর্বেই রয়েছে জ্যৈষ্ঠপুরা পাহাড়। বুড়া মসজিদ পবিত্রস্থানের মত সমাদৃত । এখানে দেশ বিদেশ থেকে ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের সমাগম ঘটে বরকত, ফজিলত ও মনোবাসনা পূরণের আশায়।

নামকরনের ইতিহাস : এ মসজিদ কখন প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল তার সঠিক সন তারিখ কারো জানা নাই। তবে সবাই একমত যে, এটি মোগল আমলের শেষ দিকে এখন থেকে প্রায় ৩০০ বৎসর পূর্বে নির্মিত হয়। মোগলদের অধস্তন পুরুষ থানাদার দীক্ষিত লোকদের পাঞ্জাগানা নামাজ আদায়ের সুবিধার্থে এ মসজিদ প্রতিষ্ঠা করেন। এ মসজিদের নামকরণ সম্পর্কে জানা যায় ওয়াসিন চৌধুরীর বাবা একজন ইবাদত গুজার ব্যক্তি ছিলেন। তিনি ইবাদত বন্দেগীতে এতই মশগুল থাকতেন যে, পারিপার্শ্বিক অবস্থা সম্পর্কে মোটেই খোঁজ খবর রাখতেন না।

তিনি বুড়ো বয়সে ঐ মসজিদে নামাজ, যিকির আজকারে দিন রাত কাটিয়ে দিতেন। তিনি এতই পরহেজগার ছিলেন যে, তাকে সবাই ‘বুড়া হুজুর’ নামে ডাকত। ইবাদত করতে করতে একদিন তিনি এই মসজিদ থেকেই হারিয়ে যান। এখনও কেউ সন্ধান পাননি বলে কথিত আছে। তাই তাঁর নামানুসারে এটি ‘বুড়া মসজিদ’ হিসেবে প্রসিদ্ধি লাভ করে।

অবস্থান : শ্রীপুর-খরণদ্বীপ ইউনিয়ন পরিষদ ও শ্রীপুর মুন্সির হাট সংলগ্ন এলাকায় এটি অবস্থিত।

যাতায়াত ব্যবস্থা : চট্টগ্রাম বহদ্দারহাট বাসটার্মিনাল হতে বাস যোগে অথবা সিএনজি টেম্পো যোগে সরাসরি বোয়ালখালী সদর পৌরসভা হয়ে কানুনগোপাড়া এবং কানুনগোপাড়া হয়ে শ্রীপুর বুড়া মসজিদ। অথবা চট্টগ্রাম বহদ্দারহাট বাসটার্মিনাল হতে বাস যোগে অথবা সিএনজি টেম্পো যোগে সরাসরি বোয়ালখালী শ্রীপুর বুড়া মসজিদ ।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here